র‍্যাবের অভিযানে গ্রেপ্তার ২

চট্টগ্রামেও ছড়াচ্ছে ইয়াবার চেয়ে শক্তিশালী মাদক ‘আইস’

নিজস্ব প্রতিবেদক | আপডেট : ২৫ ফেব্রুয়ারি, ২০২১ বৃহস্পতিবার ০৭:১০ পিএম

ভয়ঙ্কর এক মাদক ‘আইস’। ইয়াবার মতোই সহজে বহনযোগ্য, তবে ইয়াবার চেয়ে ৫০ গুণ ক্ষতিকর শরীরের জন্য। বাংলাদেশে এই মাদক আসার প্রথম খবর পাওয়া যায় ২০১৯ সালের ২৬ ফেব্রুয়ারি। ক্রমশ এই ভয়ঙ্কর মাদক ছড়িয়ে পড়ছে দেশের প্রত্যেক অঞ্চলে।

এবার চট্টগ্রামেও প্রথমবারের মত পাওয়া গেল এই ভয়ঙ্কর মাদকের সন্ধান। খুলশী এলাকা থেকে ১৪০ গ্রাম ‘আইস’ সহ দুইজনকে গ্রেপ্তার করেছে র‍্যাব-৭।

গত বুধবার (২৪ ফেব্রুয়ারি) রাত সাড়ে ১১টায় মোজাফফর নগর এলাকার আরআইডি হাফসা বিল্ডিংয়ে অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেপ্তার করা হয়।

গ্রেপ্তার দুইজন হলেন— বাঁশখালী উপজেলার ছনুয়ার মোজাফফর আহমেদের পুত্র শফিউল আলম (৩৪) ও কুমিল্লা জেলার নাঙ্গলকোট থানার চুপুয়া এলাকার মৃত আবুল কালামের পুত্র ইয়াছিন রানা (৫০)। তারা ওই বিল্ডিংয়ে ভাড়াটিয়া হিসেবে বসবাস করতো।

র‍্যাব জানায়, দীর্ঘদিন যাবত চট্টগ্রামে এই মাদক ক্রয়-বিক্রয় করে আসছিল তারা। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে অভিযান চালিয়ে মোজাফফর নগর বাইলেনের আরআইডি হাফসা বিল্ডিংয়ের সামনে থেকে পালানোর সময় ১৪০ গ্রাম ‘আইস’সহ তাদের গ্রেপ্তার করা হয়।

বিশেষজ্ঞদের মতে, ‘আইস’ বা ক্রিস্টাল মেথ ইয়াবার চেয়ে ৫০/১০০ গুণ শক্তিশালী। ইয়াবার প্রধান উপকরণ মিথাইল অ্যামফিটামিন। ইয়াবায় মিথাইল অ্যামফিটামিনের ব্যবহার হয় ২০ শতাংশ। আইস বা ক্রিস্টাল মেথে মিথাইল অ্যামফিটামিনের ব্যবহার শতভাগ। এই মাদক গ্রহণের ফলে স্ট্রোক বা হার্ট অ্যাটাকও হতে পারে।

র‍্যাব-৭ এর সহকারী পরিচালক (মিডিয়া) এএসপি মো. নুরুল আবছার বলেন, ‘গেপ্তার দুই আসামির কাছ থেকে আমরা ১৪০ গ্রাম মাদক (আইস) উদ্ধার করেছি। যার আনুমানিক মূল্য ১৪ লক্ষ টাকা।’

গ্রেপ্তারকৃতদের খুলশী থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে বলেও জানান তিনি।

আরএইচ/সিএস

Print This Post