হাটহাজারীতে কোরবানির মহিষের শিংয়ের গুতোয় শিশুর মৃত্যু, আহত ১

নিজস্ব প্রতিবেদক | আপডেট : ১ আগস্ট, ২০২০ শনিবার ১০:০০ পিএম

চট্টগ্রামের হাটহাজারী উপজেলায় ঈদের নামাজ শেষে কোরবানি দেওয়ার সময় মহিষের শিংয়ের গুতোয় সাইনান (১২) নামে একশিশু নিহত হয়েছে। এসময় আহত হয়েছে শাহারিয়াদ জিহান ( ২৫) নামে এক যুবক।

শনিবার (১ আগস্ট)  হাটহাজারী পৌরসভার ৩নং ওয়ার্ড আজিমপাড়া মরহুম ইসহাক ডাক্তারের বাড়িতে এ ঘটনা ঘটে।

নিহত শিশু সাইনান (১২) পশ্চিম আজিমপাড়ার মরহুম ইসহাক ডাক্তারের বাড়ির ফরিদ মিস্ত্রির নাতি ও মোরশেদের একমাত্র সন্তান। গুরুতর আহত শাহারিয়াদ জিহান ( ২৫) ওই শিশুর আপন চাচাতো ভাই।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, নামাজ শেষে গরু কোরবানির রক্ত দেখে মহিষটি পাগল হয়ে যায়। মহিষটি ধরতে শিশু সাইনান এগিয়ে গেলে তাকে শিংয়ে তুলে ছুড়ে দেয়ালের ওপর ফেলে। তৎক্ষনাৎ তাঁর চাচাতো ভাই জিহান তাঁকে বাঁচাতে এগিয়ে এলে মহিষটি জিহানকেও আঘাত করে এবং পালিয়ে যায়।

এলাকাবাসীর সহায়তায় তাঁদের উদ্ধার করে স্থানীয় হাসপাতালে নেয়া হলে অবস্থার অবনতি দেখে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজে প্রেরণ করা হয়। কিন্তু অতিরিক্ত রক্তক্ষরণের ফলে সাইনানের মৃত্যু হয়।

এলাকাবাসী ধারণা ওই মহিষটির সামনে অনেকগুলো গরু কোরবানি দেয়ায় রক্ত দেখে মহিষটি পাগল হয়ে যায়। যার ফলে এমন তাণ্ডব চালিয়েছে।

শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত বাদ এশা আল্লামা গাজী শেরে বাংলার মাজার প্রাঙ্গণে নামাজের জানাজা শেষে সাইনানকে পারিবারিক কবরস্থানে দাফন করা হয় এবং মহিষটির সন্ধান এখনও পাওয়া যায়নি।

সিটিজিসান ডটকম/এমএম

Print This Post