লাস ভেগাসের কোমল পানীয় পানে ঢাবির ১৪ শিক্ষার্থী অসুস্থ

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট । সিটিজিসান.কম

ঢাকা: রাজধানীর ধানমন্ডি এলাকায় লাস ভেগাস ক্যাফে নামক রেস্টুরেন্টে মেয়াদোত্তীর্ণ কোমল পানীয় পান করে অসুস্থ হয়ে পড়েছেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) ভূগোল ও পরিবেশ বিভাগের অন্তত ১৪ শিক্ষার্থী। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ৫১তম সমাবর্তনের পরদিন রোববার রাতে কনভোকেশন ডিনার করতে রেস্টুরেন্টটিতে গেলে এ ঘটনা ঘটে।

শিক্ষার্থীদের অভিযোগ, কনভোকেশন ডিনার করতে ধানমন্ডির কেয়ারি ক্রিসেন্ট ভবনের ১১ তলায় অবস্থিত লাস ভেগাস ক্যাফে ও কনভেনশন সেন্টারে যান তারা। সেখানে খাবারের সাথে পরিবেশন করা কোমল পানীয় পান করে দুইজন শিক্ষার্থী সাথে সাথে অসুস্থ হয়ে পড়েন। এ সময় উপস্থিত অন্য শিক্ষার্থীরা বোতলের গায়ে থাকা উৎপাদন ও মেয়াদের তারিখ লক্ষ করে দেখতে পান পরিবেশন করা কোমল পানীয়গুলো ৮-৯ মাস আগেই মেয়াদ উত্তীর্ণ হয়ে গেছে।

মেয়াদোত্তীর্ণ এসব বোতলের নিচে শ্যাওলা জমে গেছে। পরবর্তীতে ঘটনাস্থলে থাকা কোমল পানীয়ের কেসে পাওয়া সবগুলো বোতল মেয়াদোত্তীর্ণ হিসেবে প্রতীয়মাণ হওয়ায় রেস্টুরেন্টে উপস্থিত কর্মকর্তা-কর্মচারীদের এ ব্যাপারে জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়।

তারা কোনো সদুত্তর দিতে না পারায় উপস্থিত শিক্ষার্থীরা ধানমন্ডি মডেল থানাকে এ ব্যাপারে অবহিত করলে পুলিশ ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে ৫টি মেয়াদোত্তীর্ণ কোমল পানীয়ের খালি বোতল প্রমাণ হিসেবে জব্দ করে এবং শিক্ষার্থীদের অভিযোগের ভিত্তিতে রেস্টুরেন্টের ম্যানেজার ও ২ কর্মচারীকে আটক করে।

এ ব্যাপারে ধানমন্ডি থানায় ফোন দিলে এসআই ফাহাদ ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেন।

এদিকে, মেয়াদোত্তীর্ণ পানীয় পান করে ১৪ জন শিক্ষার্থী অসুস্থ হয়ে পড়েন। এদের মধ্যে তানভীর হাসান, মোস্তাফিজুর রহমান, নজরুল ইসলাম, আনোয়ার জাহান, জয়নাল আবেদীন, আল মামুন শুভ্রকে গতকাল সোমবার রাতে ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে নিয়ে আসা হয়। প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে তারা এখন হলে অবস্থান করছেন। এদের মধ্যে দুইজনের অবস্থা গুরুতর বলে জানা গেছে।

এ ব্যাপারে রেস্টুরেন্টের মালিকপক্ষের সাথে বার বার যোগাযোগের চেষ্টা করেও তাদের কোনো বক্তব্য পাওয়া যায়নি।

সিএস/সিএম

Print This Post