বিএনপি-পুলিশ সংঘর্ষ, ডা. শাহাদাত হাসপাতাল থেকে আটক 

নিজস্ব প্রতিবেদক | আপডেট : ২৯ মার্চ, ২০২১ সোমবার ০৭:৫০ পিএম

চট্টগ্রাম মহানগর বিএনপির আহ্বায়ক ডা. শাহাদাত হোসেনকে আটক করেছে পুলিশ। এ সময় তাঁর ব্যক্তিগত সহকারী (পিএস) মো. মারুফ, স্থানীয় বিএনপি নেতা মো. আলীকে আটক করে পুলিশ।

সোমবার (২৯ মার্চ) সন্ধ্যা সাড়ে ৬টার দিকে পাঁচলাইশ থানার প্রবর্তক মোড়ের ট্রিটমেন্ট হাসপাতাল থেকে আটক করে পুলিশ।

বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন নগর বিএনপির সাবেক সহ দপ্তর সম্পাদক মো. ইদ্রিস।

তিনি বলেন, ‘পাঁচলাইশের ট্রিটমেন্ট হাসপাতাল থেকে নগর বিএনপির আহ্বায়ক ডা. শাহাদাত হোসেন, তার ব্যক্তিগত সহকারী মো. মারুফ ও  পাঁচলাইশ থানা বিএনপির সহ-সভাপতি মোহাম্মদ আলীকে পুলিশ আটক করে কোতোয়ালী থানায় নিয়ে গেছে।’

এর আগে বিকেল সাড়ে তিনটার দিকে চট্টগ্রামের কাজীর দেউড়িতে সমাবেশ ও মিছিলকে কেন্দ্র করে পুলিশের সঙ্গে সংঘর্ষে জড়িয়েছে বিএনপি। এতে বিএনপি কর্মী ও পুলিশ সদস্যসহ আনুমানিক ১৪ জন আহত হয়েছেন। এঘটনায় নাসিমন ভবনের দলীয় কার্যালয়ে সাঁড়াশি অভিযান চালিয়ে নগর মহিলা দলের সভানেত্রী মনোয়ারা বেগম মণিসহ ১৫ নেতাকর্মীকে আটক করেছে পুলিশ।

এ বিষয়ে বিএনপির চট্টগ্রাম বিভাগীয় সাংগঠনিক সম্পাদক মাহবুবুর রহমান শামীম বলেছেন ‘শান্তিপূর্ণভাবে আমরা মিছিল করছিলাম। কিন্তু আমাদের নেতাকর্মীদের উপর পুলিশ অতর্কিতভাবে হামলা চালায় ও লাঠিচার্জ করে।’

চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পুলিশের উপ-কমিশনার (দক্ষিণ) এসএম মেহেদী হাসান বলেন, ‘পুলিশ দেখে তাঁরা হঠাৎ হামলা চালায়। এতে ৫-৬ জন পুলিশ সদস্য আহত হন। তাঁরা বোমাবাজিও করেছে। গাড়িতেও আগুন দিয়েছে। ঘটনার পর বিএনপির দলীয় কার্যালয়ে অভিযান চালিয়ে ১৫ জনকে আটক করা হয়েছে। অভিযান এখনও অব্যাহত আছে।’

আটকের বিষয়ে চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পুলিশের (সিএমপি) কমিশনার সালেহ মোহাম্মদ তানভীর বলেন,‘সন্ধ্যায় পুলিশ ট্রিটমেন্ট হাসপাতাল থেকে ডা. শাহাদাত ও তার পিএ মারুফসহ তিনজনকে আটক করা হয়েছে।’

সিএস

Print This Post