নগরে ভুয়া-পেশাদার মুক্তিযোদ্ধারাই মুক্তিযুদ্ধা বিজয় মেলার আয়োজক!

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | সিটিজিসান.কম

চট্টগ্রাম | ১২ ডিসেম্বর ২০১৮, বুধবার ১২:০৫ পিএম |

আসন্ন নির্বাচনকে সামনে রেখে চট্টগ্রাম মহানগরের আউটার স্টেডিয়ামের চলমান মুক্তিযুদ্ধা বিজয় মেলা বন্ধের দাবি জানিয়েছেন অর্ধশতাধিক মুক্তিযোদ্ধা।

মঙ্গলবার (১১ ডিসেম্বর) রাতে চট্টগ্রামের অর্ধশতাধিক মুক্তিযোদ্ধারা এক বিবৃতিতে এসব দাবি জানান।

বিবৃতিতে বলা হয়েছে, ১৯৮৯ সালে মুক্তিযুদ্ধের বিজয় বীর বাঙ্গালির অহংকার এই ¯েøাগানকে ধারণ করে চট্টগ্রামে মুক্তিযুদ্ধের বিজয় মেলার আনুষ্ঠিকভাবে সূচনা হয়। এই মেলার মাধ্যমে বাঙ্গালি জাতিসত্তার শ্রেষ্ঠ সন্তান বীর মুক্তিযোদ্ধা ও আপামর বাঙ্গালির মহামিলন মেলায় পরিণত হয়। মেলায় জাতীয় কৃষ্টি ও ঐতিহ্যের রকমারী পসরা নিয়ে হাজির হতেন উৎপাদন ও পণ্য বিপননকারীরা।

এই মেলা আয়োজনকে গিয়ে সূচনাপর্বে থাকতো বিজয় মঞ্চে আলোচনা সভা, স্মৃতিচারণ অনুষ্ঠানে উদ্ভাসিত হতো বীর বাঙ্গালির হিরণময় কীর্তিগাঁথা, ইতিহাস ও ঐতিহ্যের ফাল্গুনধারা। এতে অংশ নিতেন দেশ বরেণ্য বুদ্ধিজীবী, মুক্তিযোদ্ধা, ইতিহাসবিদ, শিক্ষাবিদ, মুক্তিযুদ্ধের স্বপক্ষের শক্তির রাজনীতিক, পেশাজীবি ও সাংস্কৃতিক নেতৃবৃন্দ। সকলের সহযোগে আয়োজিত এই বিজয় মেলা প্রজন্ম পরম্পরায় মহান মুক্তিযুদ্ধের অবিনাশী চেতনা পৌঁছে দিয়েছিল টেকনাফ থেকে তেতুলিয়া পর্যন্ত।

বিবৃতিতে আরো বলা হয়েছে, আজ অত্যন্ত দুঃখ-ভারাক্রান্ত হৃদয়ে বলতে হচ্ছে বিজয় মেলার সেই আবেদন ও আমেজ নেই। বীর মুক্তিযোদ্ধাদের ক্ষেত্রটি কেমন যেন মলিন। এই বিজয় মেলা আজ বাণিজ্য মেলায় রুপান্তিত হয়েছে। কিছু পেশাদার লোক এক কোটি পঞ্চাশ লক্ষ টাকা নিয়ে প্রশাসনের পরোক্ষ যোগ সাজাসে এই বিজয় মেলার নামে বাণিজ্য মেলায় রুপান্তিত করে টাকা ভাগ-বাটোয়ারা করে নিজেদের পকেটে নিচ্ছে।

আরো বলা হয়েছে, মেলার আয়োজকদের অধিকাংশই ভুয়া এবং পেশাদার মুক্তিযোদ্ধা। সরকার সুষ্ঠ ও শান্তিপূর্ণ নির্বাচনের জন্য ১৬ই ডিসেম্বর বিজয় দিবসের জাতীয় কুচকাওয়াজ স্থগিত করেছে, যখন নির্বাচনকে বানচালের ষড়যন্ত্রকারীদের বিরুদ্ধে সমগ্রজাতি এবং সরকার কঠোর দৃষ্টি রাখছে, ঠিক তখনই নির্বাচনের এই মুহুর্তে তথাকথিত বাণিজ্য মেলার নামে ব্যক্তি সুবিধা নেওয়ার স্বার্থ লিপ্ত।

বিবৃতিদাতারা হলেন- বীর প্রতীক মো. খোরশেদ আলম, এনামুল হক চৌধুরী, মহিউদ্দিন রাশেদ, কমান্ডার মাহবুব, নুরুল হক বীর প্রতীক, জীতন্দ্র নাথ মন্টু, শাহজাহান খান, মো. আবুল কাশেম, জাফর আহমদ, খলিল উল্লাহ সরদার, মনজুরুল আলম, মো. হোসেন, গোলাম রহমান, মো. মহিউদ্দিন চৌধুরী, শামছুল আলম, মো. শফি, আব্দুল মাবুদ, আলী আহমদ, জয়নাল আবেদীন, মনছুর রহমান, আবুল হাশেম, এনায়েত আলী, ফারুক আহমদ প্রমুখ।

সিএস/সিএম/এসআইজে