বাংলাদেশকে টার্গেট দিয়েছে ২৮৭

অনলাইন | সিটিজিসান.কম

চট্টগ্রাম:
শেষ ওয়ানডেতে দারুণভাবে ঘুরে দাঁড়াল জিম্বাবুয়ে। শেন উইলিয়ামসের শতকে ভর করে তারা ৫ উইকেটে ২৮৬ রান করেছে।

ফলে স্বাগতিক বাংলাদেশের সামনে জয়ের লক্ষ্য ২৮৭। এই রান করতে পারলে স্বাগতিকরা আরেকটি বাংলাওয়াশ উপহার দিতে পারবে।

টসে হেরে ব্যাটে নেমে শুরুটা ভাল হয়নি জিম্বাবুয়ের। দলীয় ৬ রানে ফিরে যান দুই ওপেনার। তরুণ পেসার সাইফউদ্দিন ও আবু হায়দার রনি যথাক্রমে বোল্ড করেন কেপাস জুয়াও এবং হ্যামিল্টন মাসাকাদজাকে।

এই প্রাথমিক বিপর্যয় সামলে প্রতিরোধ গড়েন ব্যান্ডন টেলর ও শেন উইলিয়ামস। দু’জনের জুটিতে আসে ১৩২ রান। টেইলার ৭৫ রানে ফিরে গেলেও একপ্রান্ত আগলে রেখে ক্যারিয়ারের দ্বিতীয় শতক তুলে নেন উইলিয়ামস।

শেষ পর্যন্ত অপরাজিত থেকে ক্যারিয়ার সেরা ১২৯ রান করেন উইলিয়ামস। এর আগে আফগানিস্তানের বিরুদ্ধে তার সেরা ছিল ১০২ রান।

টেইলরের বিদায়ের পর উইলিয়ামসকে দারুণ সঙ্গ দেন সিকান্দার রাজা (৪০)। তবে টেইলরের মতো তাকেও ফেরান স্পিনার নাজমুল ইসলাম অপু। ওই জুটিতে ৮৪ রান আসে। এরপর পিটার মুর ২৮ রান করে রানআউট হন। আর এল্টন চিগুম্বুরা ১ রানে অপরাজিত থাকেন।

বাংলাদেশের পক্ষে নাজমুল ইসলাম অপু ২ উইকেট নেন। এছাড়া আবু হয়দার রনি ও সাইফউদ্দিন ১টি করে উইকেট নেন।

সিরিজ জয় হয়ে গেছে। আজকের তৃতীয় ম্যাচটি তাই নিয়ম রক্ষার। তবে চট্টগ্রামের এই নিয়ম রক্ষার ম্যাচটিতেই বড় একটা লক্ষ্য নিয়ে মাঠে নেমেছে দুটদল। হ্যাঁ, স্বাগতিক বাংলাদেশ এবং সফরকারী জিম্বাবুয়ে, দু’দলেরই লক্ষ্য এক। বাংলাদেশের লক্ষ্য প্রতিপক্ষকে হোয়াইটওয়াশ করা। জিম্বাবুয়ের লক্ষ্য এই লজ্জা এড়ানো।

মিরপুর শেরেবাংলা জাতীয় স্টেডিয়ামে সিরিজের প্রথম ওয়ানডেতে ২৮ রানে জয় পায় বাংলাদেশ। আর চট্টগ্রামে দ্বিতীয় ওয়ানডে জয় পায় ৭ উইকেটে। এর আগে ৭১ ম্যাচে দু’দলের মুখোমুখি লড়াইয়ে বাংলাদেশ জিতেছে ৪৩টি, জিম্বাবুয়ের জয় ২৮টিতে।

সিএস/সিএম/এসআইজে