বিজয়া দশমী আজ

চট্টগ্রাম : আজ বিজয়া দশমী। হিন্দু সম্প্রদায়ের সবচেয়ে বড় দুর্গোৎসবের শেষ দিন। পুরাণ অনুসারে, দুর্গা যেমন অসুরবিনাশী দেবী, তেমনি তিনি দুর্গতিনাশিনী, যিনি জীবের দুর্গতি নাশ করেন। তিনি এবার এসেছেন নৌকায় করে। দেবী দুর্গা অসুরদের দলপতি মহিষাসুরকে বধ করে দেবকুলকে রক্ষা করেছিলেন। তার এই জয়ের মধ্য দিয়ে অন্যায় ও অশুভর বিরুদ্ধে ন্যায় ও শুভশক্তির জয় হয়েছিল।

শত শত বছর ধরে বাঙালি হিন্দু-মুসলমান যেমন পাশাপাশি বসবাস করে আসছে, তেমনি তারা একে অপরের ধর্মীয় উৎসবে যোগ দিয়ে সামাজিক সম্প্রীতি আরও সুদৃঢ় করেছে। এটাই বাঙালির চিরন্তন ঐতিহ্য। সব ধর্মের মানুষের অংশগ্রহণে দুর্গোৎসব সর্বজনীন রূপ নিয়েছে। তাই ধর্ম-বর্ণনির্বিশেষে বাঙালি সংস্কৃতিরও অন্যতম উৎসবও এটি।

বরাবরের মতো এবারও পূজা উপলক্ষে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী ব্যাপক প্রস্তুতি নিয়েছে। ফলে এখন পর্যন্ত কোনো অপ্রীতিকর ঘটনা ঘটেনি। আজ বিজয়া দশমী উপলক্ষেও তৎপর রয়েছে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী। যেকোনো ধরনের বিশৃঙ্খলা এড়াতে ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশসহ দেশের সর্বত্র পূজারীদের জন্য আগেই দিক-নির্দেশনা দেওয়া হয় আইন প্রয়োগকারী সংস্থার পক্ষ থেকে। সেই দিক-নির্দেশনা মেনেই সবাই উৎসব পালন করছেন।

পূজা নিয়ে নিরাপত্তার বিষয়ে এর আগে র‌্যাবের মহাপরিচালক বেনজীর আহমেদ জানান, সব ধরনের হুমকি এবং গোয়েন্দা তথ্যের ভিত্তিতে দেশজুড়ে দুর্গাপূজায় নিরাপত্তা ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে।

তিনি বলেন, সারাদেশে ৩০ হাজার ৭৭টি পূজামণ্ডপে র‍্যাবের নজরদারি থাকবে। সাদা পোশাকেও দায়িত্ব পালন করবে র‍্যাব। সকল নিরাপত্তা বাহিনীর সঙ্গে সমন্বয় করে পূজামণ্ডপে নিশ্ছিদ্র নিরাপত্তা গড়ে তোলা হয়েছে।

জঙ্গি অভিযান প্রসঙ্গে তিনি বলেন, এটি চলমান প্রক্রিয়া। বছর ধরেই জঙ্গি দমনে র‍্যাবের অভিযান অব্যাহত আছে।