ইন্টারপোলের ‘ওয়ান্টেড’ তালিকায় ৫৯ বাংলাদেশির নাম

সিটিজিসান ডেস্ক : আন্তর্জাতিক পুলিশকে সহায়তার জন্য প্রতিষ্ঠিত সংস্থা ইন্টারন্যাশনাল ক্রিমিনাল পুলিশ অর্গানাইজেশন (ইন্টারপোল) এর ওয়েবসাইটে ওয়ান্টেড তালিকায় রয়েছে ৫৯ বাংলাদেশির নাম। সন্ত্রাসী, চাঁদাবাজ, খুনিসহ এসব বাংলাদেশির তালিকায় রয়েছে বঙ্গবন্ধুর হত্যাকারীরাও। রয়েছে যুদ্ধাপরাধীদের নামও। বাংলাদেশ পুলিশের চাওয়া সহযোগিতার কারণে এসব বাংলাদেশি ব্যক্তির নাম ও ছবি প্রকাশ করেছে সংস্থাটি।

তালিকায় থাকা এসব ব্যক্তির বর্তমান অবস্থান জানার চেষ্টা করে ইন্টারপোল। এরপর তাদেরকে স্থানীয় আইনে গ্রেপ্তার করে আইনি প্রক্রিয়ায় দেশে ফেরত পাঠানো হয়।

ইন্টারপোলের রেড অ্যালার্ট জারি করা বাংলাদেশিরা হলেন, রফিকুল ইসলাম, প্রকাশ কুমার বিশ্বাস, আমিনুর রসুল, হারিস আহমেদ, জাফর আহমেদ, আবদুল জব্বার, নবী হোসাইন, জিসান, তৌফিক আলম, মিন্টু, শাহাদাত হোসাইন, আতাউর রহমান, নাসির উদ্দিন রতন, চাঁন মিয়া, প্রশান্ত সরদার, সুলতান সাজিদ, হারুন শেখ, মনোতোষ বসাক, আমিনুর রহমান, গোলাম ফারুক অভি, রাতুল আহমেদ বাবু, হাসন আলী ওরফে সৈয়দ মো. হাছন, সৈয়দ মোহাম্মদ হোসাইন ওরফে হোসেন, জাহিদ হোসেন খোকন, আবদুল হারিস চৌধুরী, আবদুল জব্বার, আহমেদ কবির ওরফে সুরত আলম, রফিকুল ইসলাম, সাজ্জাদ হোসেন খান, হাসেম কিসমত, শরিফুল হক ডালিম, মোল্লা মাসুদ, মো. ইউসুফ, মো. নাঈম খান ইকরাম, মকবুল হোসাইন, সালাহউদ্দিন মিন্টু, খন্দকার আবদুর রশিদ, মঈন উদ্দিন চৌধুরী, এসএইচএমবি নূর চৌধুরী, মাওলানা মো. তাজউদ্দিন মিয়া, আশরাফুজ্জামান খান, খোরশেদ আলম, মোহাম্মদ চৌধুরী আতাউর রহমান, ত্রিমতি সুব্রত বাইন, আবুল কালাম আজাদ (বাচ্চু রাজাকার), সৈয়দ, আমান উল্লাহ শফিক, নুরুল দিপু, আহমেদ মঞ্জু, চন্দন কুমার রায়, এএম রাশেদ চৌধুরী, মোসলেহ উদ্দিন খান, নাজমুল আনসার, আবদুল মাজেদ, আহমেদ শারফুল হোসাইন, কালা জাহাঙ্গীর ওরফে ফেরদৌস, খন্দকার তানভীর ইসলাম জয়, শামীম আহমেদ।

এসব ব্যক্তির কোনো তথ্য পেলে স্থানীয় পুলিশ বা ইন্টারপোলে জানানোর আহ্বান করা হয়েছে। তবে রেড অ্যালার্ট বা ওয়ান্টেড তালিকা ইন্টারপোলের কোনো গ্রেপ্তারি পরোয়ানা নয়। তাছাড়া আসামিকে গ্রেপ্তারে কোনো দেশকে চাপও দিতে পারে না ইন্টারপোল। তারা শুধু নির্দিষ্ট তথ্যগুলো সদস্যদেশগুলোকে জানায় এবং আসামি সম্পর্কে সতর্ক করে দেয়।

১৯২৩ সালে ইন্টারন্যাশনাল ক্রিমিনাল পুলিশ কমিশন নামে প্রতিষ্ঠিত হয়। এরপর  ১৯৫৬ সালে নাম পরিবর্তন  ইন্টারন্যাশনাল ক্রিমিনাল পুলিশ অর্গানাইজেশন রাখা হয়। ১৯৭৬ সালে বাংলাদেশ ইন্টারপোলের সদস্য পদ গ্রহণ করে। ইন্টারপোলের বর্তমান সদস্য ১৯২টি দেশ। এটি জাতিসংঘের পর দ্বিতীয় বৃহত্তম আন্তর্জাতিক সংস্থা।